Back

ⓘ পাকিস্তানের রাজধানীর তালিকা




                                     

ⓘ পাকিস্তানের রাজধানীর তালিকা

পাকিস্তানের স্বাধীনতার ঠিক ২০ বছর পর ১৯৬৭ সালে ১৪ই আগস্ট ইসলামাবাদকে আনুষ্ঠানিকভাবে পাকিস্তানের রাজধানী করা হয়। তবে পাকিস্তানের প্রথম রাজধানী ছিল মুহাম্মদ আলী জিন্নাহর নির্বাচিত সিন্ধুর উপকূলীয় শহর করাচি। তৎকালীন সময়ের মতো এখনও করাচি হচ্ছে পাকিস্তানের বৃহত্তম শহর এবং অর্থনৈতিক রাজধানী। ১৯৫৯ সাল পর্যন্ত এটি পাকিস্তানের সরকারের আসন থেকে যায়। তারপর পাকিস্তানের সামরিক রাষ্ট্রপতি আইয়ুব খান পাকিস্তানের উত্তরে রাওয়ালপিন্ডিতে অবস্থিত পাকিস্তান সশস্ত্র বাহিনীর সদর দপ্তরের কাছে ইসলামাবাদে একটি নতুন রাজধানী নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেন। এই প্রক্রিয়া চলাকালীন সময়ে রাওয়ালপিন্ডি পাকিস্তানের অন্তর্বর্তীকালীন রাজধানী ছিল। মোঘল আমলে বাংলা তথা বাংলাদেশের বন্দর নগরী চট্টগ্রামের নাম ছিল ইসলামাবাদ । এই নাম থেকে প্রভাবিত হয়েই পাকিস্তানের নতুন রাজধানীর নামকরণ করা হয়।

১৯৬২ সালে তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের উচ্চ জনসংখ্যার কারণে পূর্ব পাকিস্তানের প্রাদেশিক রাজধানী ঢাকাকে পুরোদেশের বিধানিক রাজধানী করা হয়েছিল।

করাচি থেকে রাজধানী স্থানান্তরিত করার কারণসমূহ হল যে এটি পাকিস্তানি জনগণের জাতিগত বৈচিত্র্যের প্রতিফলন ঘটাবে, এটি করাচির ব্যবসায়িক ও বাণিজ্যিক ক্রিয়াকলাপ থেকে আলাদা হবে এবং সারাদেশ থেকে যেকেউ সহজেই রাজধানীতে যাতায়াত করতে পারবে। তবে ১৯৬০-এর দশকের শেষের দিকেও ইসলামাবাদে রাজধানী স্থাপনের পদক্ষেপ পুরোপুরি কার্যকর হয়নি। তাই বেশ কিছু বছর ধরে বেশ কয়েকটি সরকারী মন্ত্রণালয় নিকটবর্তী রাওয়ালপিন্ডিতে অবস্থিত ছিল।

                                     

1. আঞ্চলিক রাজধানী

১৯৭০-এর দশকে বর্তমান প্রশাসনিক কাঠামো প্রতিষ্ঠিত হওয়াপর থেকে পাকিস্তানের প্রদেশ ও অঞ্চলগুলোর রাজধানী অপরিবর্তিত ছিল। চারটি প্রাদেশিক রাজধানী তাদের নিজ প্রদেশের বৃহত্তম শহর। ২০১৭ সালের সালের আদমশুমারি অনুসারে পাকিস্তানের মোট জনসংখ্যা ২০,৭৭,৭৪,৫২০।

                                     

2. সাবেক প্রাদেশিক রাজধানী

  • ফেডারেল প্রশাসনিক উপজাতীয় অঞ্চল: পেশোয়ার ১৯৪৭
  • পশ্চিম পাকিস্তান: লাহোর ১৯৫৫
  • পশ্চিম পাকিস্তান: রাওয়ালপিন্ডি ১৯৫৯
  • পূর্ব বাংলা পরবর্তীতে পূর্ব পাকিস্তান: ঢাকা ১৯৬২