ⓘ Free online encyclopedia. Did you know? page 349




                                               

ফাজিলকা জেলা

ফাজিলকা জেলা উত্তর-পশ্চিম ভারতীয় প্রজাতন্ত্রে, পাঞ্জাব রাজ্যের ২২টি জেলার মধ্যে অন্যতম নতুন জেলা। এই জেলায় ৩১৪টি রাজস্ব গ্রাম আছে। ফাজিলকা জেলার সদর দপ্তর ফাজিলকা শহর। আবোহার এই জেলার বৃহত্তম শহর।

                                               

ফিরোজপুর জেলা

ফিরোজপুর জেলা হল ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের একটি জেলা। ফিরোজপুর শহরটির জেলা সদর। ২০১১ সালের ভারতীয় জনগণনা অনুসারে ফিরোজপুর জেলার মোট জনসংখ্যা ছিল ২,০২৯,০৭৪ জন এবং আয়তনে ২১৯০ বর্গ কিলোমিটার। ফিরোজপুর জেলার রাজধানী শহর ফিরোজপুর। এটি দশটি গেটের ভিতরে ...

                                               

মোগা জেলা

মোগা জেলা ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের বাইশ জেলার মধ্যে অন্যতম। ২৪ নভেম্বর ১৯৯৫ সালে মোগা জেলা ফরিদকোট জেলা থেকে আলাদা হয়ে পাঞ্জাব রাজ্যের ১৭তম জেলা হয়ে ওঠে। ভারতের পাঞ্জাবের মধ্যে সবচেয়ে বেশি গম ও ধান উৎপাদনের মধ্যে রয়েছে মোগা জেলা। মোগা শহর ও মোগ ...

                                               

মোহালি জেলা

মোহালি জেলা উত্তর পশ্চিম ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের ২২টি জেলার একটি জেলা, যা অজিতনগর জেলা নামেও পরিচিত। এটি দাপ্তরিকভাবে সাহিবজাদা অজিত সিং নগর জেলা বা সংক্ষেপে সাস নগর জেলা নামে পরিচিত। এটি ২০০৬ সালে পাঠানকোট জেলা থেকে পাঞ্জাবের ১৮তম জেলা হিসেবে গঠি ...

                                               

রূপনগর জেলা

রূপনগর জেলা ভারতের পাঞ্জাবের ২২টি জেলার মধ্যে একটি জেলা। কথিত আছে রূপনগর শহরটি ১১শ শতকের রাজা রোকেশ্বর প্রতিষ্ঠা করেন এবং তাঁর ছেলে রূপসেনের নামে নামকরণ করেন। এটি প্রাচীন ইন্দাস উপত্যকা সভ্যতার একটি শহর। রূপর জেলার প্রধান শহরগুলো হল মরিন্দা, নাঙ্ ...

                                               

লুধিয়ানা জেলা

লুধিয়ানা জেলা উত্তর-পশ্চিম ভারতীয় প্রজাতন্ত্রের পাঞ্জাব রাজ্যের ২২ টি জেলার মধ্যে একটি। পাঞ্জাবের শিল্পের কেন্দ্রবিন্দু লুধিয়ানা নগর হল জেলা সদর দপ্তর। এখানকার প্রধান শিল্প সাইকেল অংশ নির্মাণ এবং হোসিয়ারি। লুধিয়ানা শহরটি পাঞ্জাব রাজ্যের বৃহত ...

                                               

শ্রীমুক্তসর সাহেব জেলা

শ্রীমুক্তসর সাহেব জেলা, কথ্য ভাষায় শহরের প্রাক্তন নাম মুক্তার বলে পরিচিত; ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের বাইশটি জেলার মধ্যে একটি। এর রাজধানী, শ্রীমুক্তসর সাহিব শহরটির আগে নাম ছিল মুক্তসর, শহরের নাম পরিবর্তনেপর জেলার নামটিও পরিবর্তন করা হয়েছে। জেলাটি নি ...

                                               

হোশিয়ারপুর জেলা

হোশিয়ারপুর জেলা উত্তর ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের একটি জেলা। এটি পাঞ্জাবের প্রাচীন জেলাসমূহের মধ্যে একটি, এটি পাঞ্জাবের উত্তর-পূর্ব অংশে অবস্থিত। এ জেলা উত্তর-পশ্চিম দিকে গুরুদাসপুর জেলা, দক্ষিণ-পশ্চিমে জালনদার ও কাপুরথালা জেলা, উত্তর-পূর্বে হিমাচল প ...

                                               

ইয়ানম জেলা

৩০ বর্গ কিলোমিটার বিস্তৃত এই জেলাটি অন্ধ্রপ্রদেশের কাকিনাড়া জলবন্দরের দক্ষিণে এবং গোদাবরী নদীর উত্তর তটের সামান্য অন্তর্দেশীয় অবস্থানে ১৬.৭৩ ডিগ্রী উত্তর অক্ষাংশ ও ৮২.২১ ডিগ্রি পূর্ব দ্রাঘিমা অবস্থিত। ইয়ানাম জেলাটি অন্ধপ্রদেশের পূর্ব গোদাবরী জ ...

                                               

কারাইকল জেলা

ভারতের দক্ষিণ দিকে অবস্থিত পুদুচেরি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের চারটি জেলার মধ্যে একটি হল কারাইকল জেলা বা কারিকল জেলা।জেলাটির সদর দপ্তর কারাইকল শহরে অবস্থিত,যা উত্তরে তরঙ্গমবাড়ি থেকে ১২ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং নাগপত্তনম থেকে ১৬ কিলোমিটার উত্তরে অবস্থিত। ...

                                               

পুদুচেরি জেলা

ভারতের দক্ষিণ দিকে অবস্থিত পুদুচেরি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের চারটি জেলার মধ্যে একটি হল পুদুচেরি জেলা যা পূর্বে পণ্ডিচেরি জেলা নামে পরিচিত ছিল। জেলাটি ২৯৪ বর্গকিলোমিটার বা ১১০ বর্গমাইল অঞ্চল জুড়ে বিস্তৃত। বঙ্গোপসাগরের তীর বরাবর তামিলনাড়ু রাজ্যের মধ্ ...

                                               

মাহে জেলা

ভারতের দক্ষিণ দিকে অবস্থিত পুদুচেরি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের চারটি জেলার মধ্যে একটি হল মাহে জেলা । জেলাটি সম্পূর্ণ মাহে অঞ্চল নিয়ে গঠিত। আয়তনের দিক থেকে মাহে জেলা ভারতের সবচেয়ে ক্ষুদ্র জেলা। ৯ বর্গ কিলোমিটার বিস্তৃত এই জেলাটির স্থলসীমান্তে চতুর্দি ...

                                               

আরারিয়া জেলা

১৯৬৪ সালে অররিয়া পূর্ণিয়া জেলার একটি মহকুমার স্বীকৃতি পায়। ১৯৯০ সালের জানুয়ারি মাসে এই মহকুমাটি পূর্ণিয়া বিভাগের অধীনে একটি পৃথক জেলার স্বীকৃতি অর্জন করে।

                                               

আরোয়াল জেলা

আরোয়াল জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর আরোয়াল। আরোয়াল জেলা আগে জেহানাবাদ জেলার অংশ ছিল। ২০১১ সালের পরিস্থিতি অনুসারে, বিহার শেখপুরা ও শেওহর জেলার পরই বিহারের তৃতীয় সবচেয়ে কম জনবহুল জেলা।

                                               

ঔরঙ্গাবাদ জেলা, বিহার

ঔরঙ্গাবাদ জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। মুঘল সম্রাট আওরঙ্গজেবের নামানুসারে এই জেলার সদর শহরের নামকরণ করা হয়েছিল ঔরঙ্গাবাদ। ঔরঙ্গাবাদ জেলা বিহারের মগধ বিভাগের অন্তর্গত একটি জেলা। বর্তমানে এই জেলাটি রেড করিডোরের অন্তর্গত।

                                               

কাইমুর জেলা

কাইমুর জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৮টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর ভাবুয়া। কাইমুর জেলা বিহারের পাটনা বিভাগের অন্তর্গত। এটি বিহারের পশ্চিমতম প্রান্তের জেলা। কাইমুর জেলায় ভাবুয়া-চন্দৌলি রোডের উপর অবস্থিত চান্দ বিহারের পশ্চিমতম স্থান।

                                               

খগড়িয়া জেলা

খগড়িয়া জেলার ভূখণ্ড ফরকিয়া নামেও পরিচিত। কিংবদন্তি অনুসারে, মুঘল সম্রাট আকবর তার রাজস্ব মন্ত্রী টোডরমলকে সাম্রাজ্যের মানচিত্র প্রস্তুত করতে বলেছিলেন। টোডরমল দুর্গম খগড়িয়া এলাকার মানচিত্র তৈরি করতে পারেননি। তাই তিনি এই জায়গাটির নাম দিয়েছিলে ...

                                               

গয়া জেলা

রামায়ণ ও মহাভারতে গয়ার উল্লেখ পাওয়া যায়। রামায়ণে আছে, রাম সীতা ও লক্ষ্মণকে নিয়ে গয়ায় দশরথের পিণ্ডদান করতে এসেছিলেন। মহাভারতে গয়াকে ‘গয়াপুরী’ নামে উল্লেখ করা হয়েছে। ‘গয়া’ নামটির উৎপত্তির কথা জানা যায় বায়ুপুরাণ থেকে। উক্ত পুরাণ মতে, গ ...

                                               

গোপালগঞ্জ জেলা, বিহার

নিবন্ধটি বিহারের জেলাসম্পর্কিত। বাংলাদেশের জন্য দেখুন: গোপালগঞ্জ জেলা। গোপালগঞ্জ জেলা ভারতের বিহার রাজ্যের সারণ বিভাগের অন্তর্গত একটি প্রশাসনিক জেলা। জেলা সদর গোপালগঞ্জ শহর। জেলার বেশিরভাগ মানুষ ভোজপুরী, উর্দু এবং হিন্দি ভাষায় কথা বলেন।

                                               

জামুই জেলা

জামুই জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৮টি জেলার অন্যতম। ১৯৯১ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি মুঙ্গের জেলা ভেঙে এই জেলা গঠিত হয়। এই জেলাটি বর্তমানে মাওবাদী-উপদ্রুত জেলা। জামুই জেলার আয়তন ৩,০৯৮ বর্গকিলোমিটার ১,১৯৬ মা ২; যা ইন্দোনেশিয়ার ইয়ামদেনা দ্বীপের সমান ...

                                               

জেহানাবাদ জেলা

জেহানাবাদ জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর জেহানাবাদ। এই জেলাটি মগধ বিভাগের অন্তর্গত। জেহানাবাদ রাজ্যের রাজধানী পাটনা থেকে ৪৫ কিলোমিটার এবং গয়া থেকে ৪৩ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। দরধা ও যমুনাইয়া নামে দুটি ছোটো নদীর ...

                                               

নওয়াদা জেলা

নওয়াদা জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর নওয়াদা। নওয়াদা জেলা বিহারের মগধ বিভাগের অন্তর্গত। এই জেলার ভূখণ্ড প্রাচীন মগধ মহাজনপদ, শুঙ্গ ও গুপ্ত সাম্রাজ্যের অধিভুক্ত ছিল। এই জেলার উত্তর দিকে রয়েছে বিহারের নালন্দা জ ...

                                               

নালন্দা জেলা

নালন্দা জেলার আয়তন ২,৩৫৫ বর্গকিলোমিটার ৯০৯ মা ২। আয়তনে এই জেলা কানাডার কর্নওয়াল দ্বীপের সমান। ফল্গু, মোহানে, জিরায়ন ও কুম্ভারি নদী এই জেলার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। নালন্দা জেলা পাটনা বিভাগের অন্তর্গত।

                                               

পশ্চিম চম্পারণ জেলা

পশ্চিম চম্পারণ জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৮টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর বেত্তিয়া। সমস্তিপুর জেলা বিহারের তিরহূত বিভাগের অন্তর্গত।

                                               

পাটনা জেলা

পাটনা জেলা হল পূর্ব ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর হল রাজ্যের রাজধানী পাটনা। পাটনা জেলা পাটনা বিভাগের অন্তর্গত। ২০১১ সালের জনগণনা অনুসারে পাটনা জেলা বিহারের সর্বাধিক জনবহুল জেলা।

                                               

পূর্ণিয়া জেলা

পূর্ণিয়া জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর হল পূর্ণিয়া। পূর্ণিয়া জেলা বিহারের পূর্ণিয়া বিভাগের অন্তর্গত। এই জেলাটি গঙ্গা নদীর উত্তর পাড়ে অবস্থিত।

                                               

পূর্ব চম্পারণ জেলা

পূর্ব চম্পারণ জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর মোতিহারি। জেলাটি তিরহূত বিভাগের অন্তর্গত। বর্তমানে পূর্ব চম্পারণ জেলা রেড করিডোরের অন্তর্গত। ২০১১ সালের জনগণনা অনুসারে, এই জেলাটি পাটনা জেলার পরই বিহারের দ্বিতীয় সর্ব ...

                                               

বক্সার জেলা

বক্সার জেলা দুটি মহকুমা রয়েছে। এগুলি হল: বক্সার ও ডুমরাওন। বক্সার মহকুমায় চারটি সমষ্টি উন্নয়ন ব্লক রয়েছে। যথা: বক্সার, ইটাড়ি, চৌসা ও রাজপুর। ডুমরাওন মহকুমায় সাতটি ব্লক রয়েছে। যথা: ডুমরাওন, নওয়ানগর, ব্রহ্মপুর, কেসাথ, চাক্কি, চৌগনি ও সিমরি। ...

                                               

বাঁকা জেলা

বাঁকা জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর বাঁকা। ১৯৯১ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি অবিভক্ত ভাগলপুর জেলার বৃহত্তম মহকুমা বাঁকাকে পৃথক জেলার স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছিল।

                                               

বেগুসরাই জেলা

প্রাচীনকালে বেগুসরাই অঞ্চলটিমিথিলা অঞ্চলের অন্তর্ভুক্ত ছিল। ১৮৭০ সালে বেগুসরাই মুঙ্গের জেলার একটি মহকুমার স্বীকৃতি পায়। ১৯৭২ সালে বেগুসরাই পৃথক জেলার মর্যাদা লাভ করে।

                                               

বৈশালী জেলা

বৈশালী জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। মহাভারত এবং বৌদ্ধ ও জৈন ইতিহাসে উল্লিখিত প্রাচীন মিথিলা অঞ্চলের বৈশালী শহরের নামে এই জেলার নামকরণ করা হয়েছে। এই জেলাটি তিরহূত বিভাগের অন্তর্গত।

                                               

ভাগলপুর জেলা

১৯৯০ সালে ভাগলপুর জেলায় বিক্রমশীলা গাঙ্গেয় শুশুক অভয়ারণ্য গঠিত হয়। এই অভয়ারণ্যের দৈর্ঘ্য ০.৫ কিমি ০.৩ মা।

                                               

ভোজপুর জেলা, বিহার

২০০৬ সালে ভারত সরকারের পঞ্চায়েত মন্ত্রক দেশের ২৫০টি সর্বাধিক অনগ্রসর জেলার তালিকায় এই জেলার নাম অন্তর্ভুক্ত করে। বিহারের যে ৩৮টি জেলা অনগ্রসর অঞ্চল অনুদান তহবিল কর্মসূচির অধীনে অনুদান পায়, ভোজপুর জেলা তার অন্যতম।

                                               

মজঃফরপুর জেলা

মজঃফরপুর জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর মজঃফরপুর। জেলাটি বিহারের তিরহূত বিভাগের অন্তর্গত। ২০১১ সালের জনগণনা অনুসারে, এই জেলাটি বিহারের তৃতীয় সর্বাধিক জনবহুল জেলা পাটনা ও পূর্ব চম্পারণ জেলার পরে।

                                               

মধুবনী জেলা

২০০৬ সালে ভারত সরকারের পঞ্চায়েত মন্ত্রক দেশের ২৫০টি সর্বাধিক অনগ্রসর জেলার তালিকায় এই জেলার নাম নথিভুক্ত করে। বিহারের যে ৩৬টি জেলা অনগ্রসর অঞ্চল অনুদান তহবিলের অধীনে অনুদান পেয়ে থাকে মধুবনী জেলা তার মধ্যে অন্যতম।

                                               

মাধেপুরা জেলা

মাধেপুরা জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৮টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর মাধেপুরা। মাধেপুরা জেলাটি বিহারের কোশী বিভাগের অন্তর্গত। ১৮৪৫ সালের ৩ সেপ্টেম্বর মাধেপুরা ভাগলপুর জেলার একটি মহকুমার স্বীকৃতি পায়। ১৯৫৪ সালের ১ এপ্রিল ভাগলপুর জেলা ভেঙে সহ ...

                                               

মুঙ্গের জেলা

মুঙ্গের জেলার নামকরণ করা হয়েছে এই জেলার সদর শহরের নামানুসারে। ‘মুঙ্গের’ নামটির বুৎপত্তি নিয়ে একাধিক কিংবদন্তি প্রচলিত আছে। একটি কিংবদন্তি অনুসারে, ‘মুঙ্গের’ নামটি প্রাচীন ‘মুদ্গগিরি’ নাম থেকে এসেছে। উল্লেখ্য, ‘মুদ্গগিরি’ নামটি মহাভারত ও দেবপালে ...

                                               

রোহতাস জেলা

রোহতাস জেলা হলো ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৮টি জেলার অন্যতম। রোহতাস জেলা পাটনা বিভাগের অন্তর্গত একটি জেলা। এই জেলার আয়তন ৩৮৫০ বর্গকিলোমিটার। ২০১১ সালের জনগণনা অনুসারে এই জেলার জনসংখ্যা ২,৯৬২,৫৯৩। ভোজপুরি ও হিন্দি ভাষা এই অঞ্চলে প্রচলিত।

                                               

লক্ষ্মীসরাই জেলা

২০০৬ সালে ভারত সরকারের পঞ্চায়েত মন্ত্রক দেশের ২৫০টি সর্বাধিক অনগ্রসর জেলার তালিকায় লখিসরাই জেলার নাম নথিভুক্ত করে। বিহারের যে ৩৬টি জেলা অনগ্রসর অঞ্চল অনুদান তহবিল কর্মসূচির অধীনে অনুদান পেয়ে থাকে, এই জেলা তার মধ্যে অন্যতম।

                                               

শিউহর জেলা

শিওহর জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর শিওহর। জেলাটি তিরহূত বিভাগের অন্তর্গত। ১৯৯৪ সালে সীতামঢ়ী জেলা বিভাজিত করে এই জেলা গঠন করা হয়। বিশিষ্ট হিন্দি ঔপন্যাসিক ড. ভগবতী শরণ মিশ্র ছিলেন এই জেলার প্রথম জেলাশাসক। ২০১১ ...

                                               

শেখপুরা জেলা

শেখপুরা জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর শেখপুরা। শেখপুরা জেলা বিহারের মুঙ্গের বিভাগের অন্তর্গত। ১৯৯৪ সালের ৩১ জুলাই মুঙ্গের জেলা ভেঙে শেখপুরা জেলা গঠিত হয়। বিহারের প্রথম মুখ্যমন্ত্রী শ্রীকৃষ্ণ সিংহ এই জেলার অধিবা ...

                                               

সমস্তিপুর জেলা

২০০৬ সালে ভারত সরকারের পঞ্চায়েত মন্ত্রক দেশের ২৫০টি সর্বাধিক অনগ্রসর জেলার তালিকায় সমস্তিপুর জেলার নাম নথিভুক্ত করে। বিহারের যে ৩৬টি জেলা অনগ্রসর অঞ্চল অনুদান তহবিলের অধীনে অনুদান পেয়ে থাকে, এই জেলা সেগুলির মধ্যে অন্যতম।

                                               

সহর্সা জেলা

সহর্সা জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর সহর্সা। সহরসা জেলা বিহারের কোশী বিভাগের অন্তর্গত। ১৯৫৪ সালের ১ এপ্রিল এই জেলা গঠিত হয়। ১৯৮১ সালে এই জেলা ভেঙে মাধেপুরা জেলা গঠিত হয়েছিল।

                                               

সিওয়ান জেলা

সিওয়ান জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর সিওয়ান। সিওয়ান জেলা ১৯৭২ সাল থেকে বিহারের সারন বিভাগের অন্তর্গত। ভারতের প্রথম রাষ্ট্রপতি ড. রাজেন্দ্র প্রসাদ এই জেলার জিরাদেইয়ের বাসিন্দা ছিলেন। আলি বক্সের নামানুসারে এই ...

                                               

সীতামঢ়ী জেলা

সীতামঢ়ী জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর সীতামঢ়ী। জেলাটি বিহারের তিরহূত বিভাগের অন্তর্গত এবং নেপালের সীমানা বরাবর অবস্থিত।

                                               

সুপৌল জেলা

সুপৌল জেলা হল ভারতের বিহার রাজ্যের ৩৯টি জেলার অন্যতম। এই জেলার সদর শহর সুপৌল। সুপৌল জেলা বিহারের কোশী বিভাগের অন্তর্গত। ১৯৯১ সালের ১৪ মার্চ সহরসা জেলা ভেঙে এই জেলা গঠিত হয়।

                                               

ইম্ফল পশ্চিম জেলা

ইম্ফল পশ্চিম জেলা ৪টি মহকুমা ও ১০টি সার্কেলে বিভক্ত: লামফেলপাট মহকুমা: লামফেলপাট লামসং মহকুমা: সালাম, লামসং, সেকমাই ওয়াঙ্গোয় মহকুমা: হিয়াংথাং, লিলং চাজিং, ওয়াঙ্গোয়, মায়াং ইম্ফল পাতসোই মহকুমা: পাতসোই, কনথৌজাম

                                               

ইম্ফল পূর্ব জেলা

ইম্ফল পূর্ব জেলা উত্তর-পূর্ব ভারতের মণিপুর রাজ্যের ১৬টি জেলার মধ্যে একটি। প্রোম্পাট শহর জেলার প্রশাসনিক সদরদপ্তর। ২০১১ সালের হিসাব অনুযায়ী এটি ইম্ফল পশ্চিমের জেলার পরে রাজ্যের দ্বিতীয় জনবহুল জেলা।

                                               

উখরুল জেলা

উখরুল উত্তর-পূর্ব ভারতের মণিপুর রাজ্যের একটি অন্যতম জেলা। এই জেলাটি মণিপুরের রাজধানী ইম্ফল থেকে ৮৪ কিলোমিটার উত্তর-পূর্ব দিকে অবস্থিত।

                                               

কাংপোকপি জেলা

কাংপোকপি জেলা বা স্থানীয় পরিচয়ে সদর পাহাড় জেলা, উত্তর পূর্ব ভারতে অবস্থিত সপ্তভগিনী রাজ্যগুলির একটি মণিপুর রাজ্যের অন্তঃস্থ মণিপুরে অবস্থিত মণিপুর রাজ্যের ১৬টি জেলার একটি৷ ২০১৬ খ্রিস্টাব্দে ৮ই ডিসেম্বর সেনাপতি জেলার দক্ষিণাংশ থেকে এই জেলাটি গঠ ...